Online Update

Keep in touch for online update.
পরীক্ষা সংক্রান্ত যাবতীয় তথ্যের জন্য রয়েছে অনলাইন আপডেট। ফেসবুক ফ্যানপেজ-এর কুইজে অংশগ্রহন করতে লগ-ইন কর facebook.com/Panjeree। কুইজে অংশগ্রহন করে প্রতি সপ্তাহে জিতে নাও আকর্ষনীয় পুরষ্কার।

এমআইএফটিতে ক্যারিয়ার বিষয়ক পড়াশোনা


কর্মদক্ষ জনগোষ্ঠী গড়ে তুলতে বিশ্বের প্রতিটি দেশেই কারিগরি শিক্ষার ওপর যথেষ্ট জোর দেওয়া হয়। কারিগরি শিক্ষা নিলে সহজেই চাকরি মেলে,কারিগরি শিক্ষা নিলে বদলে যাবে আপনার দিন-এমন স্লোগান নিয়ে আমাদের দেশে অনেক দেরি হলেও কারিগরি শিক্ষাকে যথেষ্ট গুরুত্ব দেওয়া হয়েছে। মার্চেন্ডাইজার পোশাক শিল্পের একটি গুরুত্বপূর্ণ পদ। বিদেশি বায়ারদের সঙ্গে মূল্য নির্ধারণ থেকে শুরু করে জাহাজীকরণ পর্যন্ত মূল কাজগুলো মার্চেন্ডাইজাররা করে থাকেন। পোশাক তৈরিতে যত রকম কাপড় ও অ্যাকসেসরিজ যেমন-বাটন, জিপার,সুতা,লেবেল,টুইল টেপ,পলি,কার্টন,গামটেপ ইত্যাদি প্রয়োজন,তা দরদাম করে এলসির মাধ্যমে কেনা মার্চেন্ডাইজারের অন্যতম দায়িত্ব। কিন্তু পেশাগত কোনো প্রশিক্ষণ না থাকায় তারা বিশেষ কোনো পেশায় জড়িত হতে পারছেন না। আর সেই গুরুত্বপূর্ণ পদগুলো পূরণে আমাদের দেশের শিল্প মালিকরা বড় অঙ্কের টাকা খরচ করে বিদেশিদের নিয়োগ দিয়ে থাকেন। স্নাতক,স্নাতকোত্তর বা সমমানের যে কোনো ডিগ্রিধারী এ পেশায় প্রশিক্ষণ নিয়ে আধুনিক ও স্মার্ট ক্যারিয়ার গড়ে তুলতে পারেন। অন্যদিকে মার্চেন্ডাইজিং শব্দের অর্থ বণিক বা ব্যবসায়ী। গার্মেন্ট বা বায়িং হাউসগুলোতে রফতানি ও আমদানি কাজে অর্থাৎ আন্তর্জাতিক কেনাবেচায় মধ্যস্থতাকারীর ভূমিকা পালন করাই তাদের কাজ। আরও বিশদভাবে বলতে গেলে বিদেশি বায়ারদের কোনো সুনির্দিষ্ট স্টাইলের ওপর প্রাইস অফার করা,প্রাইস অ্যাকসেপ্ট হলে চাহিদা অনুযায়ী কাপড় ও আনুষঙ্গিক দ্রব্যাদি সরবরাহ করা এবং বায়ারদের অনুমোদন সাপেক্ষে তা যথাসময়ে জাহাজীকরণ করাই মূলত একজন মার্চেন্ডাইজারের কাজ। মার্চেন্ডাইজিং পেশায় নূ্যনতম যোগ্যতাসম্পন্ন কোনো মার্চেন্ডাইজারের মাসিক বেতন হতে পারে কমপক্ষে ২০ থেকে ২৫ হাজার টাকা,যা যোগ্যতা অনুযায়ী এক থেকে দেড় লাখ টাকা পর্যন্ত বাড়তে পারে। এ দেশের জনসংখ্যার বড় একটি অংশ শিক্ষিত বেকার। পোশাক শিল্পের পণ্য রফতানির গোড়ার দিকে এ দেশে তেমন কোনো প্রশিক্ষণ কেন্দ্র ছিল না। তবে গত ১০ বছরে গার্মেন্ট মালিক সমিতির (বিজিএমইএ) উদ্যোগে গড়ে উঠেছে বিআইএফটি নামে একটি বিশ্ববিদ্যালয়। দক্ষ মার্চেন্ডাইজার ও গার্মেন্ট টেকনিশিয়ান তৈরিতে প্রতিষ্ঠানটির গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রয়েছে। এর পাশাপাশি আরও কিছু গুণগত মানসম্পন্ন প্রতিষ্ঠান রয়েছে, যার মধ্যে এমআইএফটি অন্যতম। এ ছাড়া কিছু প্রশিক্ষণ কেন্দ্র চালু রয়েছে,যাদের কাছ থেকে প্রশিক্ষণার্থীরা প্রয়োজনীয় প্রশিক্ষণের পরিবর্তে প্রতারিতই হচ্ছেন। এসব দিক সামনে রেখে বাংলাদেশ মার্চেন্ডাইজার অ্যাসোসিয়েশনের তত্ত্বাবধানে গড়ে উঠেছে এমআইএফটি নামের একটি প্রতিষ্ঠান। প্রতিষ্ঠার স্বল্পসময়ের মধ্যে প্রকৃত মার্চেন্ডাইজিং শিখতে এটি খ্যাতি লাভ করেছে। এখানে প্রশিক্ষক হিসেবে রয়েছেন দেশের সেরা ও সিনিয়র মার্চেন্ডাইজাররা। এমআইএফটিতে যা শেখানো হয়,তা খুবই প্র্যাকটিকাল ও যুগোপযোগী। তাই এমআইএফটি থেকে এক বছরের ডিপ্লোমা ইন অ্যাপারেল মার্চেন্ডাইজিং কোর্স শেষ করে অনেক শিক্ষার্থীই সাফল্যের সঙ্গে চাকরি করছেন।'
যোগাযোগ : মেঘ হাউস (চতুর্থ তলা),শাহ মখদুম এভিনিউ,বাসা -২০, সেক্টর-১১,উত্তরা।
ফোনঃ ০১৭১৬৬৭২৬৬৩,০১৬৭৬১৪২৬৩৩।

 

Related Updates